নাগরিকদের কারও জ্বর, মাথাব্যথা, গলাব্যথা বা শ্বাসকষ্ট দেখলেই করোনা পরীক্ষা, রাজ্যগুলিকে পরামর্শ কেন্দ্রের

This News is Presented by Shyam Sundar Jewellers

নাগরিকদের কারও জ্বর, মাথাব্যথা, গলাব্যথা বা শ্বাসকষ্ট হলেই তাঁকে সন্দেহভাজন করোনাভাইরাস আক্রান্ত হিসেবে বিবেচনা করা হবে। এমনটাই বলছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। শুক্রবার সকল রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে পাঠানো চিঠিতে কেন্দ্রের তরফে বলা হয়েছে, ‘বর্তমানে করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধির মধ্যে কারও যদি কাশি-সহ জ্বর বা কাশি ছাড়াই জ্বর থাকে; মাথাব্যথা, গলাব্যথা, শ্বাসকষ্ট, গায়ে যন্ত্রণা থাকে; সম্প্রতি স্বাদ বা গন্ধ হারিয়ে ফেলেন; আলস্য আসে এবং ডায়েরিয়া হয়, তাহলে যতক্ষণ না প্রমাণিত হচ্ছে, ততক্ষণ তাঁকে তাঁকে সন্দেহভাজন করোনাভাইরাস আক্রান্ত হিসেবে বিবেচনা করা হবে। অবশ্যই পরীক্ষা করতে হবে এরকম লোকজনদের। যতক্ষণ না পরীক্ষার ফল আসছে, ততক্ষণে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের নির্দেশিকা মেনে বাড়িতেই তাঁদের নিভৃতবাসে থাকার পরামর্শ দিতে হবে।’

কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা দ্রুত বাড়তে থাকার জেরে মাথায় চাপ বাড়ছে কেন্দ্রের। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য সচিব রাজেশ ভূষণ শুক্রবার ফের চিঠি পাঠিয়েছেন রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে। চিঠিতে ব়্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট (RAT) বাড়াতে রাজ্যগুলিকে নির্দেশ দিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যসচিব। সেই সঙ্গে প্রতিটি জেলা হাসপাতাল এবং প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্র সহ সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ব়্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টের অনুমতি দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

two × 2 =