আলিপুরের প্রশাসনিক বৈঠকে ডায়মন্ডহারবার কেন্দ্রের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়

ছবি-সংগৃহীত
ছবি-সংগৃহীত
This News is Presented by Shyam Sundar Jewellers

অভীক পুরকাইত: কোভিডের তৃতীয় ঢেউ চলছে। তত্‍পর সরকার। এবার দক্ষিণ ২৪ পরগনার কোভিড পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে মাঠে নামলেন ডায়মন্ডহারবার কেন্দ্রের সাংসদ অভিষেক বন্দোপাধ্যায়।

 

This news is sponsored by STP Tax Consultant

 

ছবি-সংগৃহীত
ছবি-সংগৃহীত

শনিবার দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার আলিপুর ভবনে প্রশাসনের সঙ্গে কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে বৈঠকে বসবেন তিনি।এদিন আলিপুরে জেলা শাসকের ভবনে কোভিড বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা ভাবে আলোচনা হয়।বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন জেলা শাসক পি উলঙ্গানাথন,জেলা পরিষদের সভাধিপতি সামিমা সেখ,জেলার পুলিশ সুপার,জেলার স্বাস্থ্য আধিকারিকগণ প্রমুখ।এদিকে সামনেই গঙ্গাসাগর মেলা। কলকাতা হাইকোর্টও শর্তসাপেক্ষে ছাড় দিয়েছে মেলার জন্য। সমস্ত প্রশাসনিক ব্যবস্থা সারা। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে সাগর মেলার প্রস্তুতি বৈঠক করে এসেছেন। প্রশাসন জানিয়েছে ইতিমধ্যেই নব্বই শতাংশ টিকাকরণ হয়ে গিয়েছে।

 

ছবি- সংগৃহীত
ছবি- সংগৃহীত

মেলা প্রাঙ্গণেও টিকাকরণ চলছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে সাধুসন্ন্যাসীরা আসতে শুরু করেছে। আসে পুণ্যার্থীরাও।এই অবস্থায় দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলায় কোভিড পরিস্থিতি যাতে নিয়ন্ত্রণে থাকে তা নিশিত করতে চাইছে সরকার।এদিন বৈঠকের শেষে ডায়মন্ডহারবার কেন্দ্রের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় সাংবাদিকদের প্রশ্নে বলেন এদিনের প্রশাসনিক বৈঠক কোভিড বিষয় সহ বিভিন্ন বিষয়ে বিস্তারিত ভাবে আলোচনা হয়।প্রতিটি গ্রাম পঞ্চায়েতের স্তরে কন্ট্রোল রুম খুলতে হবে।এমনকি টেলি মেডিসিন চালু করতে হবে।পাশাপাশি ডক্টর অন হুইল এবং মোবাইল ভ্যানে কোভিড টেস্টিং করা হবে।তিনি আরও বলেন কোভিড টেস্টিং আরও বাড়াতে হবে।বর্তমানে যে টেস্টিং চলছে তার চেয়ে আরও দশ গুন টেস্টিং বাড়াতে হবে।এছাড়া বিভিন্ন বাজার গুলি পর পর দুই থেকে তিন বন্ধ রাখতে হবে এবং মাঝে মাঝে বন্ধ নয়।একটানা দুই তিনদিন বন্ধ রাখতে হবে।প্রয়োজনে বাজার গুলিতে দোকানদার এবং খরিদ্দাররা দুটো করে মুখে মাস্ক ব্যবহার করতে হবে।এমনকি আগামী ১০ দিনের মধ্যে কোভিডের দ্বিতীয় ডোজ ভ্যাকসিন সম্পূর্ণ করতে হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

two × four =