‘কোনো টালবাহানা নয়, ২০২৫ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি পাকিস্তানেই হবে’: আইসিসি

This News is Presented by Shyam Sundar Jewellers

শান্তি রায়চৌধুরী : কিছুদিন আগে আইসিসি ঘোষণা করেছে ২০২৫ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি পাকিস্তানের হবে।
তবে পাকিস্তানে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি হলে ভারত খেলতে যাবে কি না আমাকে নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। নেটিজেনরা এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। ভারতের ক্রীড়ামন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর পাকিস্তানের নিরাপত্তা ইস্যু নিয়ে নিজের শঙ্কার কথা জানিয়েছেন। তবে এইসব প্রশ্নের উত্তর দিয়েছে আইসিসি। ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি জানিয়েছে, যে কোনো পরিস্থিতিতেই হোক, ২০২৫ চ্যাম্পিয়নস ট্রফি পাকিস্তানেই হচ্ছে। গত কয়েক বছরে বাংলাদেশ, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, দক্ষিণ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা, বিশ্ব একাদশ- অনেক দলই পাকিস্তানে দ্বি-পাক্ষিক সিরিজ খেলেছে। এমনকি পিএসএল খেলতে অনেক বিদেশি খেলোয়াড়ও পাকিস্তানে গেছেন।

একারণেই আশাবাদী আইসিসির চেয়ারম্যান গ্রেগ বার্কলে বলেছেন, ‘গত কয়েক বছরে পাকিস্তানে তো প্রচুর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট হচ্ছে। পাকিস্তানকে ‘অক্ষম’ মনে হলে সেখানে কখনোই এমন বড় টুর্নামেন্ট আয়োজনের পরিকল্পনা করতাম না। আমার দৃঢ় বিশ্বাস, ২০২৫ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি পাকিস্তানেই হবে।‘ ১৯৯৬ বিশ্বকাপ পাকিস্তানে যৌথভাবে আয়োজিত হয়েছে। যা ছিল পাকিস্তানে আয়োজিত সর্বশেষ কোনো আইসিসি ইভেন্ট। এরপর নিরাপত্তা ইস্যুতে ২০০৮ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ভেন্যু পাকিস্তান থেকে স্থানান্তরিত হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকায়।

This news is sponsored by STP Tax Consultant

এরপর ২০০৯ সালে লাহোরে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট টিমের বাসে সন্ত্রাসী হামলার পর ২০১১ বিশ্বকাপের যৌথ আয়োজকের অধিকার হারায় পাকিস্তান। ২০২৫ সালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি হলে ৩০ বছরে প্রথম কোনো আইসিসি ইভেন্ট হবে পাকিস্তানে। এই ব্যাপারে বার্কলের বক্তব্য, ‘দীর্ঘদিন পরে পাকিস্তানে বড় কোনো টুর্নামেন্ট আয়োজনের এটাই সবচেয়ে বড় সুযোগ।‘

অনুরাগ ঠাকুরের বক্তব্যের প্রেক্ষিতে আইসিসি চেয়ারম্যান আরও বলেছেন, ‘দুই রাষ্ট্রের মধ্যকার সম্পর্ক উন্নয়নের দায়িত্ব তো আমাদের না। ক্রিকেট দুটো রাষ্ট্রের মধ্যকার সম্পর্ক রয় উন্নয়নে চালিকা শক্তি হিসেবে কাজ করবে- আমরা শুধু এটুকুই আশা করতে পারি।‘

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × four =